কিভাবে বুটেবল পেন্ড্রাইভ এবং লাইভ উইন্ডোজ(যেকোন ভার্সন) তৈরি করবেন?

আস্ সালামু ওয়ালাইকুম,

কেমন আছেন সবাই? আশাকরি ভালোই আছেন। tech4bd.com এ স্বাগতম। আজ নিয়ে এলাম কিভাবে বুটেবল পেন্ড্রাইভ এবং লাইভ উইন্ডোজ তৈরি করতে হয় এই টিউটোরিয়াল নিয়ে। অনেকেই জিজ্ঞাসা করেছে আমাকে যে লাইভ উইন্ডোজ কিভাবে তৈরি করা যায়? তাই ভাবলাম একটার উপর কথা না বলে দুটো নিয়েই কথা বলি। এতে বুটেবল করাও শেখা হবে আবার লাইভ উইন্ডোজ তৈরি করাও শেখা হবে। তো চলুন শুরু করা যাক……..

প্রথমে বুটেবল পেন্ড্রাইভ এর কথায় আসি। বুটেবল পেন্ড্রাইভ হচ্ছে আপনি সিডি/ডিভিডি দিয়ে যে উইন্ডোজ ইন্সটল করেন সেই সিডি/ডিভিডি এর ইমেজটাই পেন্ড্রাইভ এর মধ্যে এমনভাবে রাখা হবে যাতে করে আপনি এই পেন্ড্রাইভ দিয়ে উইন্ডোজ ইন্সটল দিতে পারেন। যখন কোন সফটওয়্যার বা কমান্ড লাইন ব্যাবহার করে পেন্ড্রাইভকে উইন্ডোজ সেটাপ দেয়ার উপযোগী করে তোলা হয় তখন পেন্ড্রাইভটিকে বলা হয় বুটেবল পেন্ড্রাইভ।  এটার অনেক সুবিধা। দ্রুত সময়ে উইন্ডোজ সেটাপ দেয়া যায়। সিডি/ডিভিডি যেখানে বহন করা কষ্টসাধ্য সেখানে পেন্ড্রাইভ বহন করা একেবারেই সহজ। যখন তখন যেখানে সেখানে কম্পিউটারে উইন্ডোজ দেয়ার প্রয়োজন পড়লে সাথে সাথেই দিতে পারবেন।

এবার আসি লাইভ উইন্ডোজ এর কথায়। লাইভ উইন্ডোজ হচ্ছে ফ্ল্যাশড্রাইভ বা পেন্ড্রাইভ বা পোর্টেবল ড্রাইভ বা ডিভিডি থেকে উইন্ডোজ রান করানো। এটাও অনেক মজার সুবিধা দেয়। যেমনঃ মনে করেন আপনার কম্পিউটারের উইন্ডোজ নষ্ট হয়ে গেছে। C Drive বা ডেস্কটপের এর ব্যাকআপ দরকার। সেক্ষেত্রে আপনি লাইভ উইন্ডোজ রান করিয়ে, আপনার উইন্ডোজ নষ্ট হওয়া হার্ডডিস্ক এ প্রবেশ করতে পারবেন এবং ব্যাকআপ নিতে পারবেন। এককথায় যদি বলি তাহলে এটাও একটা উইন্ডোজ যেটা উপরে উল্লেখিত ড্রাইভ থেকে সরাসরি রান করানো যায়। এখন প্রধান কাজে আসি। এখানে আমি Rufus এবং WinToUsb এই দুটি সফটওয়্যার নিয়ে আলোচনা করব।




Rufus সফটওয়্যারের মাধ্যমেঃ এই সফটওয়্যারটির মাধ্যমে আপনি বুটেবল এবং লাইভ দুই ধরনের উইন্ডোজই তৈরি করতে পারবেন। এখান থেকে ডাউনলোড করবেন প্রথমে। তারপর সফটওয়্যারটি ওপেন করবেন। নিচের মত উইন্ডো ওপেন হবে। এরপর নাম্বার দেয়া ধাপগুলো অনুসরন করুন। ১নং ধাপে আপনার পেন্ড্রাইভ সিলেক্ট করুন। ২নং ধাপে MBR partition scheme for BIOS and UEFI computers সিলেক্ট করবেন। এখানে ড্রপডাউন মেনুতে GPT নামে আরেকটি partition scheme আছে দেখতে পাবেন। ওটার সাথে অনেকেই পরিচিত না। কিন্তু GPT এর সুবিধা বেশি। MBR vs GPT জানতে চাইলে এখানে ক্লিক করুন। ৩নং ধাপে NTFS বা FAT(32) করবেন। NTFS এই করার চেষ্টা করবেন। ৪নং ধাপে যা আছে সেটাই রাখুন। ৫নং ধাপে আপনি পেন্ড্রাইভের কি নাম দিবেন সেটা সেট করতে পারে।৬নং ধাপে পেন্ড্রাইভটিকে কতবার ব্যাড সেক্টরের জন্য চেক করবে সেটা সেট করতে পারেন। এটা অপশনাল। Quick Format এ ক্লিক করবেন। ৭নং ধাপে ISO image সিলেক্ট করবেন এবং লোকেশন দেখিয়ে দিবেন(ISO ইমেজ তৈরি করা দেখুন এখানে)। এর নিচে দুটি অপশন আছে যথা- Standard Windows installation এবং Windows to go। যদি Standard Windows installation এ টিক দেন তাহলে বুটেবল পেন্ড্রাইভ হবে আর যদি Windows to go এ টিক দেন তাহলে লাইভ উইন্ডোজ হবে। আপনি যা চান সেটা সিলেক্ট করবেন। ৮নং ধাপের অপশনটিতে টিক দিয়ে Start বাটনে ক্লিক করবেন। কিছুক্ষণ অপেক্ষা করুন হয়ে যাবে।

tech4bd.com|কিভাবে বুটেবল পেন্ড্রাইভ এবং লাইভ উইন্ডোজ তৈরি করবেন।

WinToUsb সফটওয়্যারের মাধ্যমেঃ এর মাধ্যমে শুধু লাইভ উইন্ডোজই তৈরি করতে পারবেন। এখান থেকে ডাউনলোড করবেন প্রথমে। তারপর সফটওয়্যারটি ওপেন করবেন। নিচের মত উইন্ডো ওপেন হবে। এরপর নাম্বার দেয়া ধাপগুলো অনুসরন করুন। ১ ও ২নং থেকে যেকোন একটা সিলেক্ট করতে হবে। যদি ISO ইমেজ থেকে লাইভ উইন্ডোজ তৈরি করতে চান তাহলে ১নং আর যদি ডিভিডি থেকে লাইভ উইন্ডোজ তৈরি করতে চান তাহলে ২নং সিলেক্ট করবেন। ৩নং ধাপে আপনি ISO/DVD ড্রাইভ সিলেক্ট করে দিবেন। ৪নং ধাপে যদি উইন্ডোজের অনেক ভার্সন থাকে তাহলে যেটা ইন্সটল করবেন সেটা সিলেক্ট করুন। উপরের কাজ গুলো হয়ে গেলে ৫নং ধাপে যান মানে next এ ক্লিক করুন।

tech4bd.com|কিভাবে বুটেবল পেন্ড্রাইভ এবং লাইভ উইন্ডোজ তৈরি করবেন?

এরপর নিচের মত স্ক্রিন আসবে। এখান থেকে ড্রপডাউন মেনু থেকে পেন্ড্রাইভ বা ফ্ল্যাশ ড্রাইভ সিলেক্ট করুন। সিলেক্ট করলেই ফরমেট চাইবে।

tech4bd.com|কিভাবে বুটেবল পেন্ড্রাইভ এবং লাইভ উইন্ডোজ তৈরি করবেন।

ফরমেট করুন এবং ফরমেট হলেই আরেকটি স্ক্রিন আসবে। এখানে নাম্বার দেয়া দুইটি অপশনেই ক্লিক করবেন। তারপর next এ ক্লিক করলেই আপনার কাজ শেষ। কিছুক্ষণ অপেক্ষা করুন হয়ে যাবে।

tech4bd.com|কিভাবে বুটেবল পেন্ড্রাইভ এবং লাইভ উইন্ডোজ তৈরি করবেন?

আজকের মত বিদায় ভাইসব। ইনশাল্লাহ আবার দেখা হবে।

বি. দ্র. অনুগ্রহ করে কমেন্ট করুন এবং আপনাদের মতামত জানান। আমাদের ফেসবুক পেজে লাইক দিবেন fb.com/techfunbd. আপনাদের মতামত আমাকে আরো এগিয়ে নিয়ে যেতে সাহায্য করবে। আপনাদের ভালো লেগেছে কিনা জানাবেন………

1 Star2 Stars3 Stars4 Stars5 Stars (No Ratings Yet)
Loading...

admin

If somethings happens, i must first tell you.

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *